গাইবান্ধারংপুর বিভাগ

গাইবান্ধা মা ও শিশু হাসপাতাল ডাক্তার তালিকা ও ফোন নাম্বার

গাইবান্ধা মা ও শিশু হাসপাতাল ডাক্তার তালিকা ও ফোন নাম্বার পেতে আমাদের লেখা গুলো মনোযোগ সহকারে পড়তে হবে। আপনারা আমাদের ওয়েবসাইটে আসলে পেয়ে যাবেন গাইবান্ধা মা ও শিশু হাসপাতালের সকল বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের তথ্য এবং এই হাসপাতালে কি কি সেবা রয়েছে সেগুলো জানতে পারবেন। শিশুদের নানারকম সমস্যা হয় সেগুলো তারা বলতে পারেনা। 

তাই তাদের প্রতি বিশেষ নজর দিতে হবে এবং তাদের ছোটখাটো সমস্যা কে অবহেলা না করে সঠিক চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে এবং চিকিৎসা গ্রহণ করাতে হবে। গাইবান্ধা মা ও শিশু হাসপাতালে শিশুদের জন্য রয়েছে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের মাধ্যমে সকল রোগের চিকিৎসা। এখানে আধুনিক পদ্ধতিতে শিশুদের চিকিৎসা দেয়া হয়। 

বর্তমানে চিকিৎসা ব্যবস্থা থাকায় এখানে অনেক জটিল রোগের সমাধান হয়ে যায় খুব সহজে। গাইবান্ধা মা ও শিশু হাসপাতালের নবজাতক শিশু থেকে শুরু করে সকল বয়সের শিশুদের চিকিৎসা দেয়া হয় এবং তার পাশাপাশি অন্য চিকিৎসার ব্যবস্থা রয়েছে। গর্ভাবস্থায় মায়েদের নানারকম সমস্যা হয় যেগুলো চিকিৎসা না করলে তাদের বাচ্চাদের সমস্যা হতে পারে। 

তাই এই অবস্থায় মায়েদের নিয়মিত চেকআপ এর মধ্যে থাকতে হয় না হলে তাদের বাচ্চাদের নানারকম সমস্যা হয় এবং বাচ্চা অনেক সময় মারা যেতে পারে। জন্য গর্ব অবস্থায় কোন অবহেলা করা যাবে না নিয়মিত চেকআপ এর মধ্যে থাকতে হবে। আপনারা আমাদের ওয়েবসাইটে আসলে পেয়ে যাবেন গাইবান্ধা মা ও শিশু হাসপাতালের সকল বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের সাথে যোগাযোগের মাধ্যম এবং তাদের চেম্বার এ সিরিয়াল দেয়ার নাম্বারটি। 

যার ফলে হয়রানি ছাড়া আপনারা সিরিয়াল দিয়ে চিকিৎসা গ্রহণ করতে পারবেন। আপনারা জেনে আনন্দিত হবেন যে বাংলাদেশের প্রায় প্রতিটি হাসপাতালের বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের তালিকা ও ফোন নাম্বার দিতে চলেছে আমাদের ওয়েবসাইটে। 

এই তালিকা থেকে আপনারা জানতে পারবেন কোন হাসপাতালে কোন বিশেষজ্ঞ ডাক্তার চিকিৎসা দিচ্ছেন এবং ওই হাসপাতালের রোগীদের জন্য কি কি সুবিধা রয়েছে। এই সকল তথ্যগুলো জানা থাকলে খুব সহজেই আপনি যেকোন সমস্যার জন্য ডাক্তার দেখাতে পারবেন। আপনাদের সুবিধার জন্যই আমাদের এই আয়োজন টি করা এবং আপনাদের সুস্থতায় আমাদের কাম্য।

ডাক্তারের তালিকা

গাইবান্ধা মা ও শিশু হাসপাতাল কলেজ রোড গাইবান্ধা। এখানে রয়েছে আধুনিক যন্ত্রপাতির মাধ্যমে প্রেগন্যান্ট মহিলাদের নিয়মিত চেকআপ এর ব্যবস্থা এবং সকল সমস্যার জন্য পরীক্ষানিরীক্ষার সুব্যবস্থা। এখানে রয়েছে গাইনী বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের মাধ্যমে প্রেগন্যান্ট মহিলাদের চিকিৎসা ব্যবস্থা। রয়েছে আধুনিক আল্ট্রাসনোগ্রাফি মেশিন এর মাধ্যমে প্রেগন্যান্ট মহিলাদের সকল পরীক্ষা নিরীক্ষার সুব্যবস্থা। 

প্রেগন্যান্ট অবস্থাতে মহিলাদের নানারকম সমস্যা দেখা দেয় যেগুলো চিকিৎসা গ্রহণ না করলে তাদের বাচ্চার ক্ষতি হতে পারে। আলট্রাসনোগ্রাফি করলে সকল সমস্যা গুলো ধরা পরে এবং প্রেগন্যান্ট মহিলাদের বাচ্চা কেমন আছে কোন পজিশনে আছে সবকিছু জানা যায়। গাইবান্ধা মা ও শিশু হাসপাতালে প্রেগন্যান্ট মহিলাদের সুচিকিৎসার ব্যবস্থা রয়েছে যার ফলে মা ও শিশু দুজনেই সুস্থ থাকে। 

এই হাসপাতালে নরমাল ডেলিভারি ও সিজার এর ব্যবস্থা রয়েছে বিশেষজ্ঞ গাইনি ডাক্তারের মাধ্যমে। এখানে নবজাতক শিশু থেকে শুরু করে সকল বয়সের শিশুদের সকল রোগের চিকিৎসা করানো হয় বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের মাধ্যমে। 

তাদের কোন রোগের কথা বলতে পারে না তাদের চালচলন এবং অস্থিরতা দেখে বুঝতে হয় তাদের কোনো সমস্যা হয়েছে এবং তাতখানা যদি ডাক্তারের চিকিৎসা নেওয়া হয় তবে তাদের রোগটি আরো বৃদ্ধি পেতে থাকে। শিশুদের কোন রোগকে অবহেলা করা যাবেনা  যত দ্রুত সম্ভব তাদের চিকিৎসার ব্যবস্থা করতে হবে।

ডাক্তারের ফোন নাম্বার

গাইবান্ধা মা ও শিশু হাসপাতাল কি 24 ঘন্টা খোলা থাকে শিশুদের চিকিৎসা দেয়ার জন্য। শিশুদের ডায়রিয়া টাইফয়েড জন্ডিস চোখের সমস্যা পেটের সমস্যা জ্বর সর্দিকাশি সকল রোগের চিকিৎসা দেয়া হয়। জন্মের পর থেকেই অনেক শিশুর নানারকম রোগে আক্রান্ত হয় এবং অসুস্থ হয়ে পড়ে তাদের জন্য রয়েছে চিকিৎসার ব্যবস্থা। 

অনেক সময় শিশুদের ঠান্ডা লেগে নিউমোনিয়া হয়ে যায় এবং শ্বাসকষ্ট শুরু হয় তাদের জন্য রয়েছে নেবুলাইজার দেয়ার ব্যবস্থা। শিশুদের চোখের সমস্যা হলে এই হাসপাতালে রয়েছে চিকিৎসা ব্যবস্থা। জন্মের পর থেকে অনেক শিশুর হার্টের সমস্যা হয় হার্ট ফুটা থাকে তাদের জন্য রয়েছে চিকিৎসা ব্যবস্থা বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের দিয়ে। 

আপনারা আপনাদের সন্তানের যেকোনো সমস্যা নিয়ে ঘরে বসে না থেকে চিকিৎসার জন্য গাইবান্ধা মা ও শিশু হাসপাতালে যোগাযোগ করতে পারেন দেখবেন যে আপনার শিশু খুব তাড়াতাড়ি সুস্থ হয়ে উঠেছে এই হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়ে। উন্নত মানের চিকিৎসা ব্যবস্থা রয়েছে এই হাসপাতালে। থাকুন নিরাপদে থাকুন।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত লেখা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *