ওষুধের ব্যবহার

কি ওষুধ খেলে বুদ্ধি বাড়ে

কি ওষুধ খেলে বুদ্ধি বাড়ে তা আজকে আপনারা জানতে পারবেন আমাদের ওয়েবসাইট থেকে। বুদ্ধি বৃদ্ধি করার জন্য আপনারা অনেকেই নানা রকম চিন্তার মধ্যে পড়ে যান তবে আপনারা আমাদের ওয়েবসাইটে আসলে কিছু তথ্য এবং কিছু বিষয় জানতে পারবেন যেগুলো ব্যবহার করলে বা চেষ্টা করলে বুদ্ধি বৃদ্ধি পেতে পারে। তার জন্য আপনাকে আমাদের এই লেখাগুলো মনোযোগ সহকারে পড়তে হবে এবং তাহলে আপনি বুঝতে পারবেন বুদ্ধি বাড়বে কিভাবে এবং কোন ওষুধ কিভাবে কাজ করবে বুদ্ধি বৃদ্ধির জন্য। 

অনেক গবেষণায় দেখা গিয়েছে জীবনে মানুষ তার মস্তিষ্কের সামর্থের খুব সামান্য ব্যবহার করে থাকে। ধারণা করা যাচ্ছে মাংসপেশীর মতোই মস্তিষ্কের যত বেশি চর্চা করা ও ব্যবহার করা হবে তত বেশি বুদ্ধি বাড়বে বা বুদ্ধি তীক্ষ্ণ হবে। আমরা অনেকেই আছি যারা মস্তিষ্কে সঠিকভাবে ব্যবহার করতে পারি না বা কোন কাজ করতে লাগলে যদি সেটা না হয় তাহলে আমরা বারবার চেষ্টা করি না অল্পতেই সেটা হাল ছেড়ে দিই সেজন্য আমাদের বুদ্ধি কম বা আমরা কোন কাজ সহজ ভাবে পারি না। 

আবার অনেকে আছে যারা একটি কাজ একবার না পারলে বারবার চেষ্টা করে এবং সে কাজটা না করা পর্যন্ত তারা থেমে থাকে না তখন তাদের মনে হয় বুদ্ধি অনেক বেশি তবে এটা ধৈর্যের অনেক ব্যাপার আছে। যারা অনেক মনোযোগ দিয়ে কোন কাজ করবে তারাই সফল হতে পারবে এবং সবাই মনে করবে তাদের বুদ্ধি বেশি সেজন্য মস্তিষ্কের ব্যবহার করাটা খুবই জরুরী। কিছু কিছু পদ্ধতিতে আপনাদের মস্তিষ্কের ব্যবহার হতে পারে যেমন কম্পিউটারে স্মৃতিশক্তি বৃদ্ধির বিভিন্ন খেলা আছে এরকম গেমস খেলতে পারেন যার মাধ্যমে আপনার মস্তিষ্কের উদ্দীপিত হবে এবং অনুশীলনের মাত্রা বাড়বে যার ফলে আপনার বুদ্ধি মাত্রা বাড়বে। 

মস্তিষ্কের অপব্যবহারের ক্ষেত্রে কিছু কাজ করা যেতে পারে যেমন বাম হাতে ব্রাশ করা বাম হাতে পেয়ালা ধরে চা কফি পান করা এগুলোতে আপনার মস্তিষ্কে সচল করবে এবং নতুন কিছু কাজ করতে আগ্রহী করে তুলবে। আপনাকে প্রতিদিন নিয়ম করে ঘুমাতে হবে যদি আপনি কম ঘুমান বা বেশি ঘুমান তাতে আপনার মস্তিষ্কের ক্ষতি হবে যার ফলে আপনার বুদ্ধি বৃদ্ধি পেতে বাধা প্রাপ্ত হবে আপনার মস্তিষ্ক কম কাজ করবে। তাই আপনাকে প্রতিদিন কমপক্ষে ছয় ঘন্টা ঘুমাতে হবে তাতে আপনার মস্তিষ্ক কর্মদক্ষ হয়ে উঠবে। আপনি চর্ব জাতীয় খাবার বর্জন করতে পারেন এবং প্রচুর পরিমাণে পানি পান করতে পারেন তাতে আপনার ব্রেন সচল থাকবে। 

প্রতিদিন অন্তত 30 মিনিট হাঁটলে বা হালকা ব্যায়াম করলে মস্তিষ্কের রক্ত চলাচল ভালো হয় সেজন্য আপনাকে এদিকেও খেয়াল রাখতে হবে। ধূমপান পরিহার করতে হবে এবং উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ রাখতে হবে। মেধাবা বুদ্ধি বাড়াতে আপনাকে নিজ মস্তিষ্কের সামর্থ্য ব্যবহার নিয়ে সচেতন হয়ে উঠতে হবে। যখন আপনি এ সকল কাজ গুলো করেন না তখন আপনার মস্তিষ্ক সঠিক কাজ করে না যার ফলে আপনি অলস হয়ে পড়েন এবং আপনার বুদ্ধি কাজে আসে না সেজন্য নিয়মিত এ সকল কাজগুলো করলে আপনার বুদ্ধি বাড়বে।

আপনার বুদ্ধি বাড়ার জন্য নিয়মিত কিছু ফর্মুলা এবং পুষ্টি সমৃদ্ধ যুক্ত খাবার খেতে হবে তাতে আপনার বুদ্ধি বাড়বে বা ব্রেন ভালো হবে। বুদ্ধি বাড়ানোর জন্য আপনাকে এক্সট্রা কোন ওষুধ খাওয়ার প্রয়োজন নেই তবে ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী আপনি কিছু ওষুধ গ্রহণ করতে পারেন যাতে কোন পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া থাকে না। তবে আপনি যদি আপনার ব্রেনের সঠিক ব্যবহার করে থাকেন তাহলে আপনাকে কোন ওষুধ ব্যবহার করতে হবে না আপনি নিজে থেকে অনেক কিছু নতুন করতে পারবেন এবং আপনার ব্রেন সচল থাকবে। তাই সুস্থ থাকতে হলে অলসতা দূর করে আপনার মস্তিষ্ককে সঠিক ব্যবহার করুন এবং আপনি হয়ে উঠুন বুদ্ধিমান।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত লেখা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *